ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ইতিহাসে সেরা পাঁচ অধিনায়ক যাদের মস্তিষ্কের কাছে হার মানত কম্পিউটার

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ইতিহাসে সেরা পাঁচ অধিনায়ক যাদের মস্তিষ্কের কাছে হার মানত কম্পিউটার

[ad_1]

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে যেকোনও দলের সাফল্যের পেছনে একজন অধিনায়কের অনেক অবদান থাকে। দল নির্বাচন থেকে শুরু করে ঘরোয়া ক্রিকেট খেলা খেলোয়াড়দের উপরেও কড়া নজর রাখেন।

যখন কোনো খেলোয়াড় ভালো পারফর্ম করেন অধিনায়ক নির্বাচকদের সাথে কথা বলে সেই খেলোয়াড়কে দলে অন্তর্ভুক্ত করেন। যেকোন খেলোয়াড়ের সাফল্যের পিছনে একজন অধিনায়কের বড় হাত থেকে। এই প্রতিবেদনে এমন ৫ অধিনায়কের কথা বলা যাঁদের মস্তিষ্ক চলত কম্পিউটারের চেয়েও দ্রুত গতিতে:

১) রিকি পন্টিং: আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সবচেয়ে বুদ্ধিমান অধিনায়কদের মধ্যে রিকি পন্টিং অন্যতম। এছাড়াও তিনি একজন দুর্দান্ত ব্যাটসম্যান হিসেবে পরিচিত ছিলেন।

ক্রিকেট মাঠে তার মস্তিষ্ক চলত কম্পিউটারের চেয়েও দ্রুতগতিতে এবং অধিনায়কত্বকালে একাধিক রেকর্ড গড়েছেন তিনি। অধিনায়ক হিসেবে পন্টিং ৩২৪টি আন্তর্জাতিক ম্যাচের মধ্যে ২২০টি জিতেছেন। এছাড়া অস্ট্রেলিয়া দলের হয়ে তিনি টানা দু’বার বিশ্বকাপও জিতেছেন।

২) মহেন্দ্র সিং ধোনি: ভারতীয় ক্রিকেট দলের সর্বশ্রেষ্ঠ খেলোয়াড় মহেন্দ্র সিং ধোনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অন্যতম সেরা স্মার্ট অধিনায়ক ছিলেন।

ধোনিই একমাত্র অধিনায়ক যিনি তার দলকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সব ধরনের বিশ্বকাপে জয় এনে দিয়েছেন। অধিনায়ক হিসেবে ধোনি ৩৩২টি আন্তর্জাতিক ম্যাচের মধ্যে ১৭৮টি জিতেছেন। এছাড়াও একজন দুর্দান্ত ফিনিশার ছিলেন।

৩) ইয়ন মরগ্যান: ইংল্যান্ড দলের প্রাক্তন ইয়ন মরগ্যান একজন ভালো অধিনায়ক হওয়ার পাশাপাশি দুর্দান্ত ব্যাটসম্যানও ছিলেন। তিনি তার স্মার্টনেসের দিক দিয়ে অধিনায়ক হিসেবে এই তালিকায় তৃতীয় স্থানে রয়েছেন।

তার অধিনায়কত্বে ইংল্যান্ড দল ২০১৯ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপের শিরোপা জয় লাভ করে। এমনকি তারই নেতৃত্বে ইংল্যান্ড দল একবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনাল খেলেছিল। অধিনায়ক হিসেবে ইয়ন মরগ্যান ১৯৮টি আন্তর্জাতিক ম্যাচের মধ্যে ১১৮টি জিতেছেন।

৪) গ্রেইম স্মিথ: দক্ষিণ আফ্রিকার বাঁহাতি ওপেনার গ্রেইম স্মিথ বিশ্বের স্মার্ট অধিনায়কদের তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছেন। গ্রেইম স্মিথের অধিনায়কত্বে দক্ষিণ আফ্রিকা একটি বিশ্বকাপ জিততে না পারলেও তার নেতৃত্ব এবং চমৎকার ব্যাটিংয়ের কারণে সকলকে মুগ্ধ করেছিলেন।

একমাত্র টেস্ট অধিনায়ক হিসেবে তিনি ১০০টিরও বেশি ম্যাচে অধিনায়কত্ব করেছেন এবং সর্বোচ্চ ৫৩টি ম্যাচ জিতেছেন। অধিনায়ক হিসেবে স্মিথ ২৮৬টি আন্তর্জাতিক ম্যাচের মধ্যে ১৬৩টি ম্যাচ জিতেছেন।

৫) স্টিভ ওয়া: বিশ্বের স্মার্ট অধিনায়কদের তালিকায় স্টিভ ওয়া রয়েছেন পঞ্চম স্থানে। রিকি পন্টিংয়ের পরেই অস্ট্রেলিয়া দলের দ্বিতীয় সফলতম অধিনায়ক হয়েছেন।

তার অধিনায়কত্বে অস্ট্রেলিয়া দল ১৯৯৯ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপের শিরোপা জয়লাভ করে। স্টিভ ওয়ার নেতৃত্বে অস্ট্রেলিয়া দল ১৬৩টি আন্তর্জাতিক ম্যাচের মধ্যে ১০৮টি ম্যাচ জিতেছে।

[ad_2]

Leave a Reply