ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

এই ৩ টি বড়ো কারণ যার জন্য দীনেশ কার্তিককে এশিয়া কাপে বেশি প্রাধান্য দেবে ভারতীয় দল!

এই ৩ টি বড়ো কারণ যার জন্য দীনেশ কার্তিককে এশিয়া কাপে বেশি প্রাধান্য দেবে ভারতীয় দল!

[ad_1]

এই বছর এশিয়া কাপের আসর দুবাইয়ের মাটিতে ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে। এই বছর এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে খেলানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ব ক্রিকেট নিয়ামক সমস্থা আইসিসি এবং এর জন্য এই বছরের এশিয়া কাপের আকর্ষণ আরো বেড়ে গিয়েছে বলে মনে করা যাচ্ছে।

এশিয়া মহাদেশের ৬টি শক্তিশালী দেশকে নিয়ে এশিয়া কাপের আয়োজন করা হয়ে থাকে। এই বছর ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলংকা, বাংলাদেশ এবং আফগানিস্তান ছাড়াও হংকং সামিল হয়েছে।

এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তান যেমন শ্রীলংকা হারিয়ে চমক দিয়েছে ঠিক তেমনি দ্বিতীয় ম্যাচে ভারতীয় দল তাদের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বি পাকিস্তান দলকে উত্তেজনা প্রবন ম্যাচে হারিয়ে গতবছরের বিশ্বকাপের হারের বদলা নিয়েছে বলে মনে করা যাচ্ছে।

এই বছর এশিয়া কাপে ভারতীয় দলের প্রথম ম্যাচে অধিনায়ক রোহিত শর্মা উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান হিসাবে ঋষভ পান্থের বদলে দীনেশ কার্তিককে দলে সুযোগ দেওয়াতে অনেকেই অবাক হয়েছিলেন। কারণ ধোনি পরবর্তী সময় থেকে ঋষভ পান্থ দলের হয়ে প্রধান উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান হিসাবে খেলে এসেছেন এবং সম্প্রতি তিনি তার পুরোনো ফর্ম ফিরে পেতেও শুরু করেছিলেন।

এশিয়া কাপের দল বাছাই পর্বে ঋষভ পান্থকেই প্রধান উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান হিসাবে দলের শটে যুক্ত করা হয়েছিল এবং দীনেশ কার্তিককে শুদু মাত্র একজন ফিনিশার হিসাবে দলে সুযোগ দেওয়া হয়।

অনেক ক্রিকেট বিশারদ এটাও মনে করছে দীনেশ কার্তিককে প্রথম একাদশে এইজন্যই রাখা হয়েছে কারণ সম্প্রতি তিনি অসাধারণ ফর্মে রয়েছেন এবং উইকেটকিপিংয়ে ঋষভ পান্থের থেকে তার অভিজ্ঞতা অনেক বেশি।

এখন দেখে নেওয়া যাক যে ৩টি প্রধান কারণে ভারতীয় দল দীনেশ কার্তিককে প্রধান উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান হিসাবে দলে জায়গা পাকা করে দিতে চলেছে বলে মনে করা যাচ্ছে।

একজন অধিনায়ক ডেথ ওভার গুলোতে সবসময় পেস বোলারদের ব্যবহার করে থাকেন। যেহেতু দীনেশ কার্তিক একজন উইকেটকিপার তাই তাকে বেশিরভাগ সময় ফিনিশারের ভূমিকা পালন করতে হয় এবং তিনি স্পিন বোলারদের তুলনায় পেস বোলারদের বিরুদ্ধে অনেক বেশি সফল।

ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান শেষ ১৪টি ইনিংসে পেস বোলারদের বিরুদ্ধে ২২৪ স্ট্রাইক রেটের সাথে ২৫৮ রান বানিয়েছেন এবং মাত্র ৩বার আউট হয়েছেন। তাহলে এই পরিসংখ্যান থেকে বোঝাই যায় তিনি পেস বোলারদের বিরুদ্ধে কতটা সফল।

[ad_2]

Leave a Reply