ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

টি-২০ বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষে পাকিস্তান ম্যাচের আগে বিস্ফোরক দাবি করলেন শহীদ আফ্রিদি

টি-২০ বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষে পাকিস্তান ম্যাচের আগে বিস্ফোরক দাবি করলেন শহীদ আফ্রিদি

[ad_1]

একসময় পাকিস্তানকে বারবার হারাতো ভারত। বিশেষ করে বিশ্বকাপের ম্যাচে। কালের পরিক্রমায় পরিস্থিতি বদলে গেছে। এখন ভারতকে যেকোনো মুহূর্তে পরাজিত করতে পারে পাকিস্তান। দেশটির সাবেক অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদি এমন দাবি করেছেন। হিন্দুস্তান টাইমসের এক প্রতিবেদনে এসব কথা জানানো হয়েছে।

তিনি বলেছেন, বাবর আজমের নেতৃত্বাধীন দলের দৃষ্টিভঙ্গি বদলে গেছে। ফলে গত এক বছরে পাকিস্তান ক্রিকেটের অনেক পরিবর্তন হয়েছে। তবে মহেন্দ্র সিং ধোনির যুগে ছবিটা আলাদা ছিল। সেসময়ে টিম ইন্ডিয়ার কৌশলটাই আলাদা ছিল।

গত বছর অক্টোবরের আগে বিশ্বমঞ্চে কোনও ম্যাচে ভারতকে হারাতে পারেনি পাকিস্তান। আইসিসি ওয়ানডে বিশ্বকাপে ৭টি এবং বৈশ্বিক টি-টোয়েন্টি আসরে ৫টি ম্যাচই জেতে ভারত।

এশিয়া কাপে আরও ভালো হেড-টু-হেড রেকর্ড ছিল ভারতের। তবে ২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারতকে পরাজিত করে পাকিস্তান। ক্রিকেটের বৈশ্বিক ইভেন্টে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীদের বিপক্ষে যা তাদের প্রথম জয়। এরপর ২০২২ এশিয়া কাপে একে অপরের বিপক্ষে একবার করে ম্যাচ জেতে তারা।

এরপরই পাকিস্তানকে নিয়ে আশায় বুক বাঁধা শুরু করেছেন সাবেক পাক কিংবদন্তিরা। তবে অতীতের কথা ভোলেননি তারা। সেই তালিকায় রয়েছেন আফ্রিদি।

দেশের শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম সামা টিভিকে দেয়া সাক্ষাৎকারে আফ্রিদি বলেন, ধোনির সময়ে (২০০৭-১৭) ভারতের দৃষ্টিভঙ্গি অন্যরকম ছিল। তাদের কৌশলও ভিন্ন ছিল। তারা বারবার পাকিস্তানকে হারের স্বাদ দিতো। আমাদের একঘরে করে ফেলেছিল ভারতীয়রা। পাক ব্রিগেডের ওপর আধিপত্য করতো টিম ইন্ডিয়া।

তিনি বলেন, পাকিস্তানকে পাশ কাটিয়ে অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে খেলতো ভারত। তাদের বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতো দলটি। সেমসময় অবশ্য তাদের দুর্দান্ত কয়েকজন ব্যাটার ছিল। এসব কথা বলার জন্য আমি ক্ষমা চাচ্ছি।

তবে অবস্থা পাল্টেছে বলে মনে করেন বুমবুমখ্যাত সুপারস্টার। আফ্রিদি বলেন, এখন পাকিস্তান ভারতকে চ্যালেঞ্জ জানাতে প্রস্তুত। আবার পুরোনো রূপে ফিরে যাচ্ছে ক্রিকেট। যেসময় ইন্দো-পাক লড়াই তীব্র হতো।

তিনি বলেন, সবকিছুর মূলে রয়েছে পরিকল্পনা। আপনি কোন স্তরে যেতে চান। সেই সিদ্ধান্ত আপনাকেই নিতে হবে। সেটা বাস্তবায়নও নিজেকেই করতে হবে।

২০২২ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে ফের ভারতের মুখোমুখি হতে যাচ্ছে পাকিস্তান। আগামী ২৩ অক্টোবর মেলবোর্নে গড়াবে এ মহারণ। যে দ্বৈরথ দেখার জন্য মুখিয়ে বিশ্বের কোটি কোটি ক্রিকেটপ্রেমী।

[ad_2]

Leave a Reply