ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

‘ডান্ডিয়া কিং’ অক্ষরেকে নতুন নাম দিয়ে বড় ব্যাখ্যা দিলেন চাহাল

‘ডান্ডিয়া কিং’ অক্ষরেকে নতুন নাম দিয়ে বড় ব্যাখ্যা দিলেন চাহাল

[ad_1]

অক্ষরের নতুন নাম দিয়েছেন যুজি। সেই নামটি নিঃসন্দেহে মজাদার। ভারতের তারকা লেগ স্পিনার বলেছেন, ‘আজ থেকে আমরা ওকে ডান্ডিয়া কিং’ নাম দিয়েছি, যেহেতু ও স্টাম্প উড়িয়ে উইকেট নিয়েছে। সেই অনুযায়ী আমরা সবাই ওকে ডান্ডিয়া কিং নামে ডাকব।’

নাগপুরে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে বিশ্বচ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়াকে ছয় উইকেটে হারিয়ে সমতা ফিরিয়েছে ভারতীয় দল।

বৃষ্টির কারণে ম্যাচটি ৮ ওভার করে হয়েছে। ভারত টস জিতে প্রথমে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয় এবং অস্ট্রেলিয়া প্রথমে ব্যাট করে ৫ উইকেটে ৯০ রান করে।

রান তাড়া করতে নেমে ভারত চার বল বাকি থাকতে চার উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয়। ম্যাচের পরে ভারতের তারকা লেগ-স্পিনার যুজবেন্দ্র চাহাল এবং অক্ষর প্যাটেলের একটি ভিডিয়ো সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। চাহাল সেই ভিডিয়োতে অক্ষরের নতুন নাম প্রকাশ্যে এনেছেন। সেটা কী জানেন?

অক্ষরের নতুন নাম দিয়েছেন যুজি। সেই নামটি নিঃসন্দেহে মজাদার। ভারতের তারকা লেগ স্পিনার বলেছেন, ‘আজ থেকে আমরা ওকে ডান্ডিয়া কিং’ নাম দিয়েছি,

যেহেতু ও স্টাম্প উড়িয়ে উইকেট নিয়েছে। সেই অনুযায়ী আমরা সবাই ওকে ডান্ডিয়া কিং নামে ডাকব।’ প্রসঙ্গত, গুজরাট থেকে আসার কারণে এর আগে অক্ষরকে সবাই ‘বাপু’ বলে ডাকতেন।

যুজি যোগ করেছেন, ‘আমরা ওকে ডান্ডিয়া কিং ডাকনাম দিয়েছি। ডান্ডিয়া গুজরাটে (প্যাটেলের জন্মস্থান) বিখ্যাত। ও যে ভাবে উইকেটে নিয়েছে,

তা হল ওর স্টাম্প টু স্টাম্প বোলিং এবং উইকেট নেওয়া। আশা করি হায়দরাবাদেও এটা অব্যাহত থাকবে এবং সিরিজ জিতব।’

বাঁহাতি স্পিনার তাঁর বোলিং নিয়ে আরও বলেন, ‘শেষের দিকের ওভারে ব্যাটসম্যান মনে করে, বোলারকেই টার্গেট করতে হবে। তবে আমি বিশ্বাস করি,

আপনি যদি আপনার সঠিক লাইন এবং লেন্থে বল করেন, তা হলে কার্যকরী হবে। আমি কখনও-ই ভাবি না যে, ব্যাটসম্যান এখানে বা সেখানে মারবে। আমি যে ভাবে চাই সে ভাবে বোলিং করি।’

মোহালিতে অস্ট্রেলিয়ার কাছে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচ হেরে গিয়ে বিশ্বকাপের আগে ঘরের মাঠে ভারতের প্রস্তুতি জোরালো ধাক্কা খায়। বড় রানের ইনিংস গড়েও সিরিজের প্রথম ম্যাচ হারতে হয়েছিল টিম ইন্ডিয়াকে।

সঙ্গত কারণেই নাগপুরে সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্য়াচটি ডু-অর-ডাই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে যায় রোহিত শর্মাদের সামনে। নাগপুরে হারলেই সিরিজ খোয়াতে হতো ভারতকে,

যা বিশ্বকাপের আগে দলের আত্মবিশ্বাসে চিড় ধরাতে পারত। যদিও এমন মরণ-বাঁচন ম্যাচে টিম ইন্ডিয়া ঘুরে দাঁড়ায়। বৃষ্টি বিঘ্নিত দ্বিতীয় ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে সিরিজে সমতা ফেরায় ভারত।



[ad_2]

Leave a Reply