ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

প্রশংসা করতে গিয়ে রোহিতকে চরম অপমান করলেন পাক প্রাক্তন অধিনায়ক !

প্রশংসা করতে গিয়ে রোহিতকে চরম অপমান করলেন পাক প্রাক্তন অধিনায়ক !

[ad_1]

ক্রিকেট বিশ্বে খেলোয়াড়দের মধ্যে তুলনা খুবই সাধারণ একটা ঘটনা। ব্যাটার, অধিনায়ক কিংবা বোলারদের মধ্যে বিশেষজ্ঞ এবং ফ্যানেরা হামেশাই তুলনা টানতে থাকেন। পাকিস্তান ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক সলমান বাটও ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক রোহিত শর্মাকে নিয়ে একটি বড়সড় মন্তব্য করলেন।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়কের প্রশংসা করতে গিয়ে তিনি দক্ষিণ আফ্রিকার প্রখ্যাত ব্যাটার এ বি ডিভিলিয়ার্সের সঙ্গে করে বসলেন। সেইসঙ্গে রোহিতের ফিটনেস নিয়েও বিস্ফোরক একটি কথা বললেন তিনি।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের বর্তমান অধিনায়কের প্রশংসা করতে গিয়ে সলমান বাট বললেন, প্রখ্যাত ক্রিকেটার এবি ডিভিলিয়ার্সের জায়গাই রোহিত শর্মাকে দেওয়া হত, যদি বিরাট কোহলির অর্ধেক ফিটনেসও ওর মধ্যে থাকত।

ক্রিকেট বিশ্বের সবথেকে ফিট ক্রিকেটারদের একজন হলেন বিরাট কোহলি। আসলে বাবর আজম এবং মহম্মদ রিজওয়ানের সঙ্গে রোহিত শর্মার সঙ্গে তুলনা করে তাঁকে প্রশ্ন করা হয়, তখনই তিনি এই কথাটা বলেন।

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে সলমান বাট বললেন, ‘বাবর আজম এবং মহম্মদ রিজওয়ানের সঙ্গে রোহিত শর্মার তুলনা টানাই উচিত নয়। রোহিতের স্কিল বিচার করুন। বিরাট কোহলির থেকে ফিটনেস অর্ধেক হলেও তাঁর মতো খতরনক ক্রিকেটার খুবই কম রয়েছে।

এরপর রোহিতের সঙ্গে শুধুমাত্র এবি ডিভিলিয়ার্সেরই চলে। এরমধ্যে আর কেউ আসে না। যদি কোহলির মতো রোহিতও ফিট হত, তাহলে না জানি ও ঠিক কী কী করত।’

সাম্প্রতিকতম আইসিসি টি-২০ ব়্যাঙ্কিংয়ের কথা যদি বলা যায়, তাহলে বাবর আজম এবং মহম্মদ রিজওয়ান প্রথম দুটো স্থানেই রয়েছে। অন্যদিকে রোহিত শর্মা এবং বিরাট কোহলি যথাক্রমে ১৪ এবং ২৯ নম্বরে রয়েছে।

সাদা বলের ক্রিকেটে রোহিত শর্মা যে বিধ্বংসী ক্রিকেটার, তা আজ আর বলার অপেক্ষা রাখে না। ওপেনার হিসেবে সীমিত ওভারের ক্রিকেটে তিনি অসংখ্য রেকর্ড কায়েম করেছেন।

এই প্রসঙ্গে আপনাদের জানিয়ে রাখি, আসন্ন আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপে রোহিত শর্মা ভারতীয় ক্রিকেট দলকে নেতৃত্ব দেবেন। আগামী ২৩ অক্টোবর ভারতীয় ক্রিকেট দল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানের বিরুদ্ধে টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচেই খেলতে নামবে।

একনজরে আসন্ন বিশ্বকাপের জন্য ভারতের ১৫ সদস্যের ক্রিকেট স্কোয়াড:

রোহিত শর্মা (অধিনায়ক), কেএল রাহুল (সহঅধিনায়ক), বিরাট কোহলি, সূর্যকুমার যাদব, দীপক হুডা, ঋষভ পন্থ (উইকেটকিপার), দীনেশ কার্তিক (উইকেটকিপার), হার্দিক পান্ডিয়া, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, যুজবেন্দ্র চাহাল, অক্সর প্যাটেল, জসপ্রীত বুমরাহ, ভুবনেশ্বর কুমার, হর্ষল প্যাটেল, আর্শদীপ সিং।

পাশাপাশি ৪ ক্রিকেটারকে স্ট্যান্ডবাই হিসেবেও রাখা হয়েছে। তাঁরা হলেন – মহম্মদ সামি, শ্রেয়স আইয়ার, রবি বিষ্ণোই এবং দীপক চাহার।

[ad_2]

Leave a Reply