ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

বেরিয়ে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য, ‘লজ্জা লাগা দরকার, কোথায় দেশপ্রেম?’ পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের বিরুদ্ধে এক হাত দিলেন জাভেদ

বেরিয়ে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য, ‘লজ্জা লাগা দরকার, কোথায় দেশপ্রেম?’ পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের বিরুদ্ধে এক হাত দিলেন জাভেদ

[ad_1]

পাকিস্তান দলের মেন্টরশিপের দায়িত্ব না মেলায় পাকিস্তান কর্তাদের দেশপ্রেম নিয়ে মন্তব্য করলেন জাভেদ মিঞাঁদাদ। তিনি এশিয়া কাপের ব্যর্থতা নিয়ে মুখ খুলে PCB কর্তাদের তোপ দাগেন।

তাঁর মতে, তিনি দলের দায়িত্বে থাকলেই কপাল খুলবে পাকিস্তান দলের। যদিও বোর্ড কর্তারা তাঁর মন্তব্যকে গুরুত্ব দেননি। যার জেরে তাঁর রোষের মুখে কর্তারা।

এশিয়া কাপে আশা জাগিয়েও হতাশ হয়েছে পাকিস্তান। ফাইনালে জঘন্য পারফরমেন্স করেছে তারা। বিশেষ করে ব্যাটিংয়ে। দলের কেউই দাঁড়াতে পারেননি। দলের অন্যতম ভরসা মহম্মদ রিজওয়ান ও বাবর আজম দুজনেই ব্যর্থ হয়েছেন।

ফলে মুখ থুবড়ে পড়েছে পাকিস্তানের এশিয়া কাপের অভিযান। এই পরিস্থিতিতে পাকিস্তানের পারফরমেন্স নিয়ে হতাশা প্রকাশ করলেন কিংবদন্তী জাভেদ মিঞাঁদাদ। মহম্মদ রিজওয়ান, ইফতিকার আহমেদ, বাবর আজমদের মত ব্যাটারদের নিয়েও ২৩ রানে ফাইনালে হারতে হয় তাদের। গুরুত্বপূর্ণ সময়ে উইকেট দিয়ে ফিরে এসেছেন পাকিস্তান ব্যাটাররা।

পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে ব্যর্থ হয়েছেন ফখর জামান ও বাবর আজম, তাঁরা স্ট্রাইক রেট তুলতেই পারেননি। রিজওয়ান যদিও পাকিস্তানের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেছেন।

এই প্রসঙ্গে দলের পারফরমেন্স নিয়ে হতাশা প্রকাশ করলেন জাভেদ মিঞাঁদাদ। তিনি প্লেয়ারদের উপর ক্ষোভ প্রকাশের পাশাপাশি তিনি PCB-র উপরও রান প্রকাশ করেন। সম্প্রতি পাকিস্তান দলের মেন্টর হিসেবে জাভেদ মিঞাঁদাদের প্রস্তাব খারিজ করে দেয় PCB।

মিঞাঁদাদ এশিয়া কাপে পাকিস্তানের খারাপ পারফরমেন্স ধরে টি-২০ বিশ্বকাপে দলের মেন্টর হিসেবে তাঁর উপস্থিতি নিয়ে মন্তব্য করেন। তিনি এক সাক্ষাৎকারে বলেন, “আমার মত মানুষ বসে আছে।

ব্যক্তিগতভাবে, আমি চাই আমাকে ব্যবহার করা হোক। আমি সবসময় পাকিস্তানকে এগিয়ে রেখেছি। তোমাদের কাছে লোক আছে। আমার টাকা লাগবে না। আমি চাই প্লেয়াররা যাতে আমার থেকে লাভবান হয়। আমার অনেক অভিজ্ঞতা আছে। পাকিস্তান যেভাবে হেরেছে তাতে খারাপ লাগছে।”

তাঁকে দলে না নেওয়ায় তিনি বোর্ড কর্তাদের দেশপ্রেম নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। বলেন, “এটা লজ্জাজনক। তোমার কাছে এত লোক আছে, কিন্তু ব্যবহার করছ না। কোথায় তোমার দেশপ্রেম? কোন পাকিস্তানের কথা বল তোমরা? আমি যদি ওখানে থাকতাম, তাহলে আমি বলতাম যে উইকেট হাতে রেখে খেলো।

আমার অভিজ্ঞতা আছে। কিন্তু এই বাচ্চা বাচ্চা প্লেয়ারগুলো জানে না, ওরা মাঠে নেমে মারতে শুরু করে। ওরা জানে না কাকে মারতে হবে আর কাকে ছাড়তে হবে। কী সমস্যা হবে উইকেটে থেকে খেললে।”

জাভেদ মিঞাঁদাদের এই বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে কোনও মন্তব্য করেনি পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। তাঁর আক্রমণের মুখেও চুপ থেকেছে তারা। তবে জাভেদ মিঞাঁদাদে মেন্টর হিসেবে পাকিস্তান দলে যোগ দেওয়ার স্বপ্ন যে পূরণ হবে না তা নিশ্চিত। কারণ বিশ্বকাপের জন্য দল গঠন সম্পূর্ণ পাকিস্তানের।

[ad_2]

Leave a Reply