ADS বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন: [email protected]

শার্দূল-কুলদীপের আগুনে বোলিংয়ে কিউয়িদের সাত উইকেটে ওড়াল ভারত

শার্দূল-কুলদীপের আগুনে বোলিংয়ে কিউয়িদের সাত উইকেটে ওড়াল ভারত

[ad_1]

তিন ম্যাচের বেসরকারি টেস্ট ও সমসংখ্যক ওয়ানডে ম্যাচ খেলতে ভারতে সফররত নিউজিল্যান্ড এ দল। তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের প্রথম দু’টি টেস্ট ড্র হয়ে যায়।

এরপর ভারত তৃতীয় টেস্টটি ১১৩ রানে জিতে যায়। এবার ভারত-নিউজিল্যান্ড তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে মুখোমুখি হয়েছে। বৃহস্পতিবার অর্থাৎ আজ চিপকের এমএ চিদম্বরম স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হয়েছিল সঞ্জু স্যামসনের ভারতীয় এ দল ও রবার্ট ও’ডোনেলের কিউয়ি ব্রিগেড। শার্দূল ঠাকুর ও কুলদীপ সেনদের দাপটে ভারত প্রথম ম্যাচই জিতে নিল সাত উইকেটে।

এদিন টস হেরে নিউজিল্যান্ড এ প্রথমে ব্যাট করে মাত্র ১৬৭ রান তোলে। ৫০ ওভারও পুরো ব্যাট করতে পারেনি। ৪০.২ ওভারে গুটিয়ে যায় ডোনেল অ্যান্ড কোং। সৌজন্যে শার্দূল-কুলদীপের আগুনে বোলিং।

শার্দূল ৮.২ ওভার বল করে চার উইকেট তুলে নেন মাত্র ৩২ রান দিয়ে। কুলদীপ সাত ওভার বল করে ৩০ রানের বিনিময়ে তুলে নেন তিন উইকেট। কুলদীপ যাদব পেয়েছেন একটি উইকেট। নিউজিল্যন্ড এ দলের হয়ে সর্বোচ্চ স্কোর মিশেল রিপনের (৬১)।

কিউয়ি এ টিমের রান তাড়া করতে নেমে মাত্র ৩২ ওভারের মধ্যে তিন উইকেট হারিয়ে এই রান তুলে দেয়। ওপেন করতে নেমেছিলেন পৃথ্বী শ ও রুতুরাজ গায়কোয়াড় ওপেন করতে নেমেছিলেন। পৃথ্বী ফিরে যান ১৭ রান করে।

এরপর রুতুরাজ (৪১), রাহুল ত্রিপাঠী (৩১), স্যামসন (অপরাজিত ২৯) ও রজত পতিদার (অপরাজিত ৪৫) মিলে বাকিটা বুঝে নেন। আসন্ন টি-২০ বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার বিমানে ওঠার দাবিদার ছিলেন শার্দূল-স্যামসন। কিন্তু তাঁরা ব্রাত্যই থেকেছেন।

এমনকী ঘরের মাঠে অস্ট্রেলিয়া ও দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে সীমিত ওভারের সিরিজেও জায়গা পাননি। এদিন চিপক দেখল ‘ব্রাত্য’জনদের বিস্ফোরণই।

[ad_2]

Leave a Reply