ভবানীপুর উপনির্বাচনে রেকর্ড ভোটে জয়ী হয়ে মহালয়ার পরই বিধায়ক পদে শপথ নিতে চলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

ভবানীপুর উপনির্বাচনে রেকর্ড ভোটে জয়ী হয়ে মহালয়ার পরই বিধায়ক পদে শপথ নিতে চলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়
ভবানীপুর উপনির্বাচনে রেকর্ড ভোটে জয়ী হয়ে মহালয়ার পরই বিধায়ক পদে শপথ নিতে চলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

Bengaliportal: ভবানীপুর উপনির্বাচনে রেকর্ড ভোটে জয়ী হয়ে মহালয়ার পরই বিধায়ক পদে শপথ নিতে চলেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শোনা যাচ্ছে, দলের অন্দরে মহালয়ার ঠিক পরের দিন অর্থাৎ ৭ অক্টোবর শপথ নেওয়ার ইচ্ছেপ্রকাশ করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

প্রতিদিনের তাজা খবর পেতে ফেসবুক পেজ ও টেলিগ্রামে যুক্ত হন:

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শপথ গ্রহণকে কেন্দ্র করেও তৈরি হয়েছে জটিলতা। ফলে আদৌ নির্ধারিত দিনে তিনি শপথ নিতে পারবেন কি না, তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। কারণ, উপনির্বাচনে জয়ী প্রার্থীদের শপথ গ্রহণের ক্ষেত্রে বেশ কিছু নিয়ম রয়েছে। উপনির্বাচনে জয়ী প্রার্থীদের শপথ বাক্য পাঠ করান স্পিকার। তবে তাঁকে এই ক্ষমতা হস্তান্তর করেন রাজ্যপাল। এক্ষেত্রে রাজভবন ক্ষমতা দিলেই স্পিকার শপথ গ্রহণ করাতে পারবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। বিধানসভার তরফে ইতিমধ্যেই এই ক্ষমতা চাওয়া হয়েছে। তবে চাইলে রাজ্যপাল নিজেও শপথ গ্রহণ করাতে পারেন উপনির্বাচনে জয়ী বিধায়ককে।

সূত্রের খবর, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৭ অক্টোবর অর্থাৎ আগামী বৃহস্পতিবার শপথ নেওয়ার ইচ্ছেপ্রকাশ করেছেন। কিন্তু এখনও রাজভবনের তরফে স্পিকারের কাছে সবুজ সংকেত পৌঁছয়নি। ফলে কে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে শপথ বাক্য পাঠ করাবেন তা নিয়ে তৈরি হয়েছে জটিলতা। সূত্রের খবর, আজই মিলতে পারে রফাসূত্র। বিধানসভার তরফে যোগাযোগ করা হতে পারে রাজভবনের সঙ্গে। তারপরই স্পষ্ট হবে আদৌ ৭ অক্টোবর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শপথ গ্রহণ করতে পারবেন কি না, রাজ্যপাল নাকি স্পিকার-কে শপথ গ্রহণ করাবেন। অর্থাৎ রাজ্যপাল সিদ্ধান্ত না জানানো পর্যন্ত বিষয়টি অনিশ্চিত।

Leave a Reply